দুনিয়ার সব বিখ্যাত মানুষদের শেষ কথাগুলো অনেক সময়ই দারুণ পরামর্শ, আবার মজার কিছু এবং অনেক সময় অনুপ্রেরণাদায়ক হয়ে থাকে। তবে এখানে বিখ্যাত ব্যক্তিদের ১৬ টি শেষ কথা দেওয়া হলো যার মাধ্যমে তাদের জীবনের শিক্ষা-অভিজ্ঞতা উঠে এসেছে।

১. বব মার্লে ব্যাপক জনপ্রিয় আফ্রিকান শিল্পী বব মার্লে। তার শেষ কথাগুলো সন্তানের প্রতি ছিলো,

অর্থ জীবন কিনতে পারে না।

এই কথায় মনযোগ দিলে বুঝতে পারবেন, এর মধ্যে কতো বড় সত্য লুকিয়ে রয়েছে এবং জীবনের আসল ভালোবাসা কী হতে পারে। সেইসঙ্গে টাকা কী করতে পারে তারও ইঙ্গিত রয়েছে এতে।

২. জন লেনন কিংবদন্তি বিটলসের সদস্য জন লেননকে বলা হয় ‘সেল্ফ-ড্রিমার’। তার শেষ কথা ছিলো অভিযোগ এবং দাবির মতো,

আমিকে গুলি করা হয়েছে।

এ কথায় বোঝা যায়, তিনি কতোটা আতঙ্কিত হয়েছিলেন এবং তার শেষ বাক্য ছিলো সত্যিই ট্র্যাজিক।

৩. জে এম ব্যারি বিখ্যাত ‘পিটার প্যান’ এর লেখক ব্যারির শেষ কথাগুলো ছিলো,

আমি ঘুমাতে পারি না।

দীর্ঘদিন নিউমোনিয়ায় ভুগে ১৯৩৭ সালের ১৯ জুন তিনি মারা যান।

৪. থমাস আলভা এডিসন ওপারে চলে যাওয়ার আগে এই বিখ্যাত আবিষ্কারকের শেষ কথা ছিলো,

সেখানে অপার সৌন্দর্য।

তার এ কথা সবচেয়ে হৃদয়গ্রাহী এবং এ অর্থ প্রকাশ করে যে মৃত্যু কতোটা সুন্দর।

৫. জর্জ হ্যারিসন বিটলসের আরেক সদস্য জর্জ হ্যারিসন। তার শেষ কথা ছিলো,

একজন আরেকজনকে ভালোবাসো।

এ কথায় বোঝা যায় একজন দয়াশীল সুখী মানুষ তার উপদেশ দিচ্ছেন।

৬. ফ্রিদা কাহলো বিতর্কিত এই চিত্রশিল্পী ছিলেন নারী অধিকারের বিষয়ে সচেতন এক আইকন। তার শেষ কথা ছিলো,

আশা করছি এ বিদায় আনন্দঘন হবে এবং কখনো ফিরবো না।

৭. লিওনার্ডো দা ভিঞ্চি-

আমি ঈশ্বর ও মানব জাতির কাছে অপরাধী, কারণ আমার কাজের মান সেই পর্যায়ে পৌঁছেনি যা হওয়ার কথা ছিলো

– এটিই ছিলো মোনালিসার স্রষ্টা ভিঞ্চির শেষ কথা।

৮. এলিজাবেথ ব্যারেট ব্রাউনিং একজন কবি হিসেবে এলিজাবেথের শেষ কথাগুলো বেশ মানানসই। তার স্বামী জিজ্ঞাসা করেছিলেন, তুমি কেমন বোধ করছো? তার সাধারণ জবাব,

‘সুন্দর’।

৯. অ্যানা পালোভা বিশ্বখ্যাত ব্যালে শিল্পী তার সোয়ান লেক টাইটেল নৃত্যের জন্য চিরস্মরণীয়। তার মৃত্যুর আগ মুহূর্তের শেষ কথা ছিলো,

আমার সোয়ান পোশাকটি প্রস্তুত করো।

১০. স্টিভ জবস অ্যাপলের এই সহ-প্রতিষ্ঠাতার শেষ বাক্য নিয়ে বিতর্ক রয়েছে। তবে তার বোন জানান, জবসের শেষ শব্দগুলো ছিলো এমন,

‘ওহ ওয়াও ওহ ওয়াও ওহ ওয়াও’।

১১. গ্রোকো মার্কস এই চিরস্মরণীয় কৌতুক অভিনেতার শেষ কথা ছিলো,

আমি কি মারা যাচ্ছি প্রিয়তমা? কেনো, এটাই শেষ কাজ যা আমি করবো।

১২. ডায়ানা ‘প্রিন্সেস অব ওয়েলস’ বিশ্বের সবচেয়ে বেশি মানুষের ভালোবাসা পাওয়া এই নারীর শেষবারের মতো বলেছিলেন,

‘হায় খোদা, কী হলো?’

প্যারিসের গাড়ি দুর্ঘটনার পর মারা যাওয়ার আগে এটাই তার শেষ বাক্য।

১৩. লিও টলস্টয় এই রাশিয়ান কিংবদন্তি লেখক তার শেষ কথা বলেন,

আমি অনেক কিছু ভালোবাসি, আমি সব মানুষকে ভালোবাসি।

১৯১০ সালে রাশিয়ার একটি ট্রেন স্টেশনে তিনি মারা যান।

১৪. জেমস ডিন এই বিখ্যাত সুদর্শন অভিনেতা জেমস ডিন গাড়ি দুর্ঘটনায় মারা যান। মৃত্যুর আগে তার শেষ কথা ছিলো,

এই মানুষটিকে থামাতে হবে-তার সঙ্গে দেখা হবে।

যাকে নিয়ে বলেছেন তার সঙ্গে জেমসের গাড়ির দুর্ঘটনা ঘটে।

১৫. পাবলো পিকাসো এই চিত্রশিল্পীর পাগলাটে চিত্রকর্মের সঙ্গে আমরা সবাই পরিচিত। একানব্বই বছর বয়সে মৃত্যুর আগে তার শেষ রসিকতা ছিলো-

আমার উদ্দেশ্যে পান করো।

১৬ মহানবী (সাঃ) সৃষ্টির মহা-মানব হযরত মুহাম্মদ (সা.) এর শেষ উক্তিটি ছিল

আমার উম্মতের কি হবে।

এই কথায় মনযোগ দিলে বুঝতে পারবেন, এর মধ্যে কতো গভীর ভালবাসা লুকিয়ে আছে। একজন মানুষ অর্থ-আভিজাত্য, আরাম-আয়েশ সবকিছুকে ভুলে স্বীয় জীবনকে শুধু অপরের কল্যানে ব্যায় করেছেন আর বুঝিয়েছেন সত্যিকারের ভালবাসা কাকে বলে।